Monday, May 20
Shadow

Tag: মাসালা

জুমার নামাজের জামাত ছুটে গেলে কী করবেন?

জুমার নামাজের জামাত ছুটে গেলে কী করবেন?

Islam
জুমার নামাজের জামাত ছুটে যাওয়া বলতে এখানে বোঝানো হয়েছে যে, মুসল্লি দ্বিতীয় বা শেষ রাকাতের রুকুর পরে জামাতে শরিক হয়েছে কিংবা সালাম ফেরানোর পরে মসজিদে প্রবেশ করেছে অথবা অন্য যেকোনও কারণে জুমার নামাজই পড়তে পারেননি তাহলে এক্ষেত্রে তিনি আর জুমা পড়বেন না; বরং প্রথম অবস্থায় ইমাম সাহেব সালাম ফেরানোর পর তিনি একাকী দাঁড়িয়ে জোহরের চার রাকাত আদায় করবেন আর যদি দ্বিতীয় ও তৃতীয় অবস্থার সম্মুখীন হন; অর্থাৎ সালাম ফেরানোর পর মসজিদে প্রবেশ করেন কিংবা যেকোনও কারণে নামাজই পড়তে পারেননি তাহলেও একাকী চার রাকাত জোহর পড়ে নিবেন। উপরোক্ত অবস্থাগুলোতে তার ওপর থেকে জুমার নামাজ রহিত হওয়ার কারণ হল-‘জামাত ছুটে যাওয়া।’ কেননা জুমার নামাজের জন্য জামাত শর্ত। পক্ষান্তরে মুসল্লি যদি জুমার নামাজের এক রাকাতও পায়; অর্থাৎ দ্বিতীয় রাকাতের রুকুর আগে নামাজে শরিক হতে পারেন তাহলে ইমাম সাহেব সালাম ফেরানোর পরে একাকী দাঁড়িয়ে অবশিষ্ট এক রা...
হাঁটু বের হলে কি অজু ভেঙে যাবে?

হাঁটু বের হলে কি অজু ভেঙে যাবে?

Islam
অজুর পরে কোন কারণে যদি হাঁটু বের হয়ে যায় তাহলে অজু ভেঙে যাবে-আমাদের সমাজে এ কথা বেশ প্রচলিত। বাস্তবতা হলো-হাঁটু থেকে কাপড় সরলে অজু ভাঙবে না; বরং প্রচলিত কথাটি ভুল। যেকারণে অজু ভাঙবে না আমরা জানি, অজু ভঙ্গের কারণ ৭ টি। শুধুমাত্র ওই কারণগুলো পাওয়া গেলেই অজু ভাঙবে, অন্যথায় নয়। হাঁটু বের হওয়া অজু ভঙ্গের কোন কারণ নয়। তাই উপরোক্ত অবস্থায় অজু ভাঙবে না। অজু ভঙ্গের কারণগুলো হলো অজু ভঙ্গের কারণ মোট ৭ টি। যথা: এক, পেশাব-পায়খানার রাস্তা দিয়ে কোনকিছু বের হওয়া। দুই, মুখ ভরে বমি করা। তিন, শরীরের যেকোনও জায়গা থেকে রক্ত, পুঁজ, পানি বের হয়ে গড়িয়ে পড়া (এক্ষেত্রে যদি রক্ত পানি বারবার মুছে ফেলার কারণে গড়িয়ে না পড়ে এবং এ ধারণা হয় যে পানি না মুছলে তা গড়িয়েপড়া পরিমাণ হয়ে যেত তাহলে অজু ভেঙে যাবে)। চার, থুতুর সঙ্গে রক্তের পরিমাণ সমান বা বেশি হওয়া। পাঁচ, চিৎ, কাত কিংবা হেলান দিয়ে ঘোমানো। ছয়, পাগল, মাতাল ...

Please disable your adblocker or whitelist this site!

error: Content is protected !!