Thursday, February 2
Shadow

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা ৫ অক্টোবর

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে মেডিকেল কলেজে এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষা ৫ অক্টোবর (শুক্রবার) অনুষ্ঠিত হবে। ডেন্টাল কলেজে বিডিএস ভর্তি পরীক্ষা হবে ৯ নভেম্বর ২০১৮ তারিখে (শুক্রবার) । আজ (মঙ্গলবার) স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের এক সভায় এমবিবিএস ও বিডিএস ভর্তি পরীক্ষর তারিখ নির্ধারণ করা হয়।
এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষায় অংশ গ্রহণে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের অনলাইনে আবেদন প্রক্রিয়া শুরু হবে ২৭ আগস্ট থেকে। আবেদন জমা দিতে হবে ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখের মধ্যে।
বিডিএস ভর্তির অনলাইন আবেদন করতে হবে ১৬ থেকে ২৭ অক্টোবর ২০১৮ পর্যন্ত।
ভর্তি সংক্রান্ত বিস্তারিত বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে শিগগিরই পত্রিকা ও শিক্ষা অধিদপ্তরের (www.dshe.gov.bd) ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হবে।

২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে এমবিবিএস কোর্সে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী আবেদনকারীর  সংখ্যা ৮২ হাজার ৮৫৪ জনে দাঁড়ায়। দেশের মোট ৩১টি সরকারি মেডিকেল কলেজে নির্ধারিত ৩ হাজার ৩১৮ আসন সংখ্যার বিপরীতে প্রায় ২৫ গুণ বেশি আবেদন জমা পড়ে

মেডিকেল ভর্তি বিজ্ঞপ্তি  ২০১৮-১৯ এর গুরুত্বপূর্ণ কিছু বিষয়

আবেদন শুরু : ৩১-০৮-২০১৮ (দুপুর ১২.০০ থেকে) 

 আবেদনের শেষ সময় : ১৮-০৯-২০১৮

প্রবেশপত্র ডাউনলোডের তারিখ: ২৯-০৯-২০১৮ থেকে ৩০-১০-২০১৮ তারিখ পর্যন্ত ।

ভর্তি বিজ্ঞপ্তি দেখে নাওবাংলাদেশের নাগরিক শিক্ষার্থী যারা ইংরেজি ২০১৪ ২০১৫ সনে এসএসসি বা সমমানের পরীক্ষায় এবং ইংরেজি ২০১৬ বা ২০১৭ সনে এইচএসসি বা সমমানের উভয় পরীক্ষায় পদার্থ, রসায়ন ও জীববিদ্যাসহ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছেন তারা ভর্তির | আবেদন করার যােগ্য হবেন। ইংরেজি ২০১৪ সনের পূর্বে এসএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ ছাত্র/ছাত্রীরা আবেদনের যােগ্য বলেবিবেচিত হবেন না। সকল দেশী ও বিদেশী শিক্ষা কার্যক্রমে এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান দুটি পরীক্ষায় মােট জিপিএ কমপক্ষে ৯.০০ হতে হবে ।সকল উপজাতীয় ও পার্বত্য জেলার অ-উপজাতীয় প্রার্থীদের ক্ষেত্রে এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় মােট জিপিএ কমপক্ষে ৮.০০ হতে হবে। তবে এককভাবে কোন পরীক্ষায় জিপিএ ৩.৫০-এর কম হলে আবেদনের যােগ্য হবেন না।

সকলের জন্যে এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় জীববিজ্ঞানে (Biology) ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ থাকতে হবে।

মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন

১০০ (একশত) নম্বরের ১০০ (একশত)টি এমসিকিউ প্রশ্নের ১ (এক) ঘণ্টার লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

লিখিত পরীক্ষায় বিষয়ভিত্তিক নম্বর :
জীববিদ্যা-৩০;
রসায়নবিদ্যা-২৫;
পদার্থবিদ্যা-২০;
ইংরেজি-১৫;
সাধারণ জ্ঞান : বাংলাদেশের ইতিহাস ও সংস্কৃতি-৬, আন্তর্জাতিক-৪

নম্বর কর্তন

২০১৭-২০১৮ শিক্ষাবর্ষে এমবিবিএস/বিডিএস ভর্তি পরীক্ষায় পূর্ববর্তী বছরের এইচএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের সর্বমােট | (Aggregated) নম্বর (এসএসসি/সমমান পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ-এর ১৫ গুণ+এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ-এর ২৫ গুণ+ভর্তি পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বর) থেকে ০৫ (পাচ) নম্বর কর্তন করে এবং পূর্ববর্তী বৎসরের সরকারি মেডিকেল বা ডেন্টাল কলেজ/ইউনিট-এ ভর্তিকৃত ছাত্র/ছাত্রীদের ক্ষেত্রে মােট প্রাপ্ত নম্বর থেকে ০৭.৫ (সাত দশমিক পাঁচ) নম্বর কর্তন করে মেধা। তালিকা তৈরি করা হবে। লিখিত পরীক্ষায় প্রতিটি ভুল উত্তর প্রদানের জন্য ০.২৫ নম্বর কর্তন করা হবে।

পাশ নম্বর

লিখিত পরীক্ষায় ১০০ নম্বরের মধ্যে ন্যূনতম ৪০ নম্বর পেতে হবে। লিখিত পরীক্ষায় ৪০ নম্বরের কম নম্বর প্রাপ্তরা অকৃতকার্য বলে গণ্য হবেন। শুধুমাত্র কৃতকার্য পরীক্ষার্থীদের মেধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হবে।

জিপিএ- এর উপর নম্বর

এসএসসি ও এইচএসসি বা সমমান পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ মােট ২০০ নম্বর হিসেবে নির্ধারণ করে নিম্নলিখিতভাবে মূল্যায়ন করাহবে :

ক) এসএসসি/সমমান পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ-এর ১৫ গুণ=৭৫ নম্বর (সর্বোচ্চ)

খ) এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ-এর ২৫ গুণ=১২৫ নম্বর (সর্বোচ্চ)

লিখিত ভর্তি পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বর এবং  এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় প্রাপ্তনম্বরের যােগফলের ভিত্তিতে মেধা তালিকা প্রণয়ন করা হবে।

MBBS ভর্তি ২০১৮ এর জন্য Online ফরম পূরণের নিয়মাবলী ও ভর্তি সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য detail instructions for applicant) website: http://aglis.teletalk.com.bd, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের ওয়েব সাইট www.molifiv.gov.bd এবং স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এর ওয়েব সাইট www.dghs.gov.bd হতে জানা যাবে।

মেডিকেল ভর্তি সার্কুলার ২০১৮-১৯

মেডিকেল ভর্তি 2018

নব্যাংক ডাউনলোড করুন

­
­
­

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Please disable your adblocker or whitelist this site!

error: Content is protected !!